খাগড়াছড়িতে সিএনজির সঙ্গে পিকআপের মুখিমুখি সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৫

আব্দুর রউফ, খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি:

খাগড়াছড়ি সদরের দীঘিনালা সড়কের তিনমাইল এলাকায় সিএনজি এবং যাত্রীবাহী পিকআপ মুখিমুখি সংঘর্ষ হয়েছে। এতে ৬জন আহত হয়েছে। আহতদের উদ্ধার করে খাগড়াছড়ি আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হলে গুরুত্বর আহত একজনকে চমেকে পাঠানোর পথে তার মৃত্যু হয়।

পথিমধ্যে মারা যাওয়া ব্যক্তির নাম মোঃ সুলতান (৫০) বলে জানা গেছে। তিনি নাড়াইছড়ি রেঞ্জের প্রহরী হিসেবে দীঘিনালা বন বিভাগে দায়িত্বরত ছিলেন। উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হলে পথিমধ্যে তার মৃত্যু হয় হয়।

বৃহস্পতিবার (৫ অক্টোবর) বেলা পৌনে ১ টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। আহতদের মধ্যে ২জনের অবস্থা গুরুতর আর বাকি ৩জনের অবস্থা স্বাভাবিক রয়েছে।

গুরুতর আহতরা হলেন, লক্ষ্মীপুরের রামগতি উপজেলার মোঃ মাহবুব ( ২৭) ও দীঘিনালা উপজেলার মোঃ বেলাল হোসেন এর শিশু কন্যা নারগিস(৩)।

খাগড়াছড়ি আধুনিক সদর হাসপাতালের আরএমও ডাঃ নয়নময় ত্রিপুরা জানান, সিএনজি এবং পিকআপ মুখিমুখি সংঘর্ষে ৬জনকে আহত অবস্থায় মেডিকেলে আনা হয়। এদের মধ্যে ১জনের অবস্থা গুরুত্বর ছিল। তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্রগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হলে পথিমধ্যে তার মৃত্যু হয়েছে। এখনো ১জন শিশু বাচ্চার অবস্থা খারাপ। তার দুটি পা ভেঙ্গে গেছে। তাকে আমরা জরুরী চিকিৎসা দিচ্ছি। আর বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

খাগড়াছড়ি সদর থানার ওসি তারেক মোহাম্মাদ আব্দুল হান্নান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সিএনজি এবং পিকআপ মুখিমুখি সংঘর্ষে গুরুত্বর আহত একজনকে চমেকে নেওয়ার পথে মারা যাওয়ার খবর পেয়েছি। ঘটনার পরপরই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। কিন্তু ঘটনাস্থলে কোন গাড়ি পাওয়া যায়নি, আমরা এদের আটকের জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।