🕓 সংবাদ শিরোনাম

সাম্প্রতিক বন্যায় ৭ কোটি টাকার বেশি নগদ বরাদ্দ * সিলেটে আশ্রয়কেন্দ্রে এখনও ৫০ হাজার বন্যার্ত মানুষ * গত ২৪ ঘন্টায় পদ্মা সেতুতে টোল আদায় ২ কোটি ৯ লাখ * গর্ভপাতের অধিকার রক্ষার দাবিতে আমেরিকার বিভিন্ন প্রদেশে বিক্ষোভ * এবার পাবনায় একসঙ্গে ৩ সন্তানের জন্ম, নাম পদ্মা-সেতু-উদ্বোধন * নীলফামারীতে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে যুবকের মৃত্যু * সুনামগঞ্জে বন্যার্তদের মাঝে কোস্ট গার্ড মহাপরিচালকের ত্রাণ বিতরণ * চার দফা দাবিতে পাবিপ্রবির ইতিহাস বিভাগের শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ * বাংলাবান্ধা ইমিগ্রেশন চেক পোষ্ট দিয়ে ভারতীয় ভিসার দাবিতে সংবাদ সম্মেলন * শাহজাদপুরে জোড়পূর্বক সহবাস করায় স্বামীর গোপনাঙ্গ কর্তনের অভিযোগ *

  • আজ সোমবার, ১৩ আষাঢ়, ১৪২৯ ৷ ২৭ জুন, ২০২২ ৷

গাইবান্ধায় তিস্তা-যমুনা-ব্রহ্মপুত্রের পানি বৃদ্ধি, নিম্নাঞ্চল বন্যা প্লাবিত


❏ বুধবার, জুলাই ১৩, ২০১৬ দেশের খবর, রংপুর

ফরহাদ আকন্দ, গাইবান্ধা প্রতিনিধি: টানা বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলে গাইবান্ধা জেলার উপর দিয়ে প্রবাহিত তিস্তা-যমুনা-ব্রহ্মপুত্র নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে নিম্নাঞ্চলের অনেক গ্রাম বন্যায় প্লাবিত হয়েছে।

যমুনা নদী বেষ্টিত সাঘাটা উপজেলার হলদিয়া, মদনের পাড়া, আমদির পাড়া, কাঠুয়া, গোবিন্ধপর, জটিরপাড়া, থৈকরের পাড়া, চিনিরপটল, পালপাড়া, চকপাড়া, পবনতাইর, কুন্ডপাড়া, চানপাড়া,গোবিন্ধি, বাশহাটা, মিয়াপাড়াসহ বেশ ক’টি গ্রাম বন্যায় প্লাবিত হয়েছে ।

তিস্তা নদী বেষ্টিত সুন্দরগঞ্জ উপজেলার শ্রীপুর ইউনিয়নের উত্তর ও দক্ষিন শ্রীপুর, কঞ্চিবাড়ি ইউনিয়নের ছয়ঘড়িয়া, হরিপুর ইউনিয়নের হাজারির হাট, চড়িতাবাড়ি, বোছাগাড়ি, হরিপুর খেয়াঘাট ও বেলকা ইউনিয়নের কিশামত সদর, বেলকা নবাবগঞ্জসহ কাপাসিয়া, চন্ডিপুর, তারাপুর ইউনিয়নের বেশ ক’টি গ্রাম।bonna

ব্রহ্মপুত্র নদ বেষ্টিত ফুলছড়ি উপজেলার ফজলুপুর ইউনিয়নের কাউয়াবাঁধা, পশ্চিম নিশ্চিন্তপুর, চন্দনস্বর, পশ্চিম খাটিয়ামারী, উত্তর খাটিয়ামারী, পূর্ব খাটিয়ামারী, এরেন্ডাবাড়ী ইউনিয়নের তিনথোপা, পাগলার চর, বুলবুলি, দক্ষিণ হরিচন্ডি, উত্তর হরিচন্ডি, ঘাটুয়া, দক্ষিন সন্যাসী, আনন্দবাড়ী, পশ্চিম ডাকাতির চর, আলগার চর, পশ্চিম জিগাবাড়ী, ধলি পাটাধোয়া গ্রাম প্লাবিত হয়েছে।

বন্যায় প্লাবিত হয়ে এসব গ্রামের ফসলি জমি পাট ক্ষেত, সদ্য রোপনকৃত বীজতলা, খদ্য শস্যাসহ বিভিন্ন ফসল তলিয়ে গেছে।

এসব এলাকায় বন্যার্ত মানুষেরা দুর্ভোগের শিকার হয়ে অসহায়ে দিন কাটাতে হচ্ছে। বন্যা কবলিত এলাকার অধিকাংশ লোক উঁচু মাচা পেতে, নৌকা ও কলা গাছের ভেলায় রাত্রিযাপন করছেন।