🕓 সংবাদ শিরোনাম

১৩ বছর আত্মগোপনে থাকার পর যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার * নিজের অশ্লীল ছবি দিয়ে ফেসবুক মেসেঞ্জারে ছাত্রীর ছবি চান অধ্যক্ষ! * ‘চুক্তি বাতিল করেছি’, জানালেন সাকিব * বিয়ের নাটক সাজিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ, থানায় মামলা * পান্থপথের আবাসিক হোটেল থেকে নারী চিকিৎসকের গলাকাটা মরদেহ; গ্রেপ্তার ঘাতক * বিছনাকান্দি পর্যটন কেন্দ্রে রাতের আধারে পাথর চুরি, দিনে ট্রাকে বিক্রি * সিয়েরা লিওনে মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে সরকার বিরোধী বিক্ষোভ, নিহত ২৭ * বিবাহ বহির্ভূতভাবে ১০ মাস সংসার! স্ত্রীর স্বীকৃতিতে নারীর অনশন * জাতীয় শোক দিবসে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে : আইজিপি * ম্যাকিয়াভেলির প্রভাবে শেখ হাসিনা, যা প্রয়োজন *

  • আজ শুক্রবার, ২৮ শ্রাবণ, ১৪২৯ ৷ ১২ আগস্ট, ২০২২ ৷

নাম বদলে ২২ বছর পলাতক ছিলেন আমৃত্যু কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি!

tarakanda
❏ সোমবার, জানুয়ারি ১১, ২০২১ ময়মনসিংহ

কামরুজ্জামান মিন্টু, ময়মনসিংহ থেকেঃ ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলার তিলাটিয়া গ্রামের আবদুস সোবহানের ছেলে শহীদ মিয়া (৪৬)। ১৯৯৮ সালে জমি নিয়ে বিরোধের জের ধরে তার প্রতিবেশী ইদ্রিস আলী খুন হন। এ ঘটনায় সে সময় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা হয়।

পুলিশ তদন্ত শেষে আদালতে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। আদালত দীর্ঘদিন শুনানি শেষে ২০০৩ সালে মামলার রায় দেন। রায়ে মো. শহীদ মিয়াকে যাবজ্জীবন (আমৃত্যু) কারাদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়।

আদালত থেকে সাজা পরোয়ানা পুলিশের কাছে গেলেও দীর্ঘদিন পলাতক থাকা মো. শহীদ মিয়াকে কোনোভাবেই গ্রেপ্তার করা সম্ভব হচ্ছিল না। ওই অবস্থায় দীর্ঘ ২২ বছর পলাতক থাকার পর অবশেষে তাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

সোমবার (১১ জানুয়ারি) বিকালে তাকে আদালতের নির্দেশে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। এর আগে রবিবার (১০ জানুয়ারি) রাতে তারাকান্দা থানা পুলিশের টিম অভিযান চালিয়ে শহীদকে ঢাকার দোহার এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে তারাকান্দা থানার এসআই আবুল কালাম আজাদ বলেন, আসামি শহীদ মিয়া নিজের নাম পরিবর্তন করে আলী নাম ধারণ করেছিলেন। আলী নাম ব্যবহার করে বানিঘাটা এলাকায় বিয়ে করেন শহীদ। জমিজমা কিনে সেখানেই সংসার পেতেছিলেন।

এ বিষয়ে তারাকান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল খায়ের বলেন, তাকে বহু খোজাখুজি করেও এতদিন পাওয়া যায়নি।

ঘটনার পর ২২ বছর পলাতক ছিলেন ওই আসামি। নাম পরিবর্তন করে সংসার পেতে বসবাস শুরু করে। অবশেষে তাকে গ্রেপ্তার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।