🕓 সংবাদ শিরোনাম

যে নেতার নিজের মা মরে মরে, তাকে দেখতে আসে না আর আপনার জন্য আসবে কোন দুঃখে: শামীম ওসমান * কেরানীগঞ্জে প্যাকেজিং কারখানায় আগুন, ৩ ঘন্টার চেষ্টায় নিয়ন্ত্রণে * পুলিশের উদ্ধার করা মাদক ছিনিয়ে নিয়ে প্রকাশ্যে খেল মাদকসেবীরা! * চাঁদা না দেয়ায় দোকানে হামলা ভাংচুর, ব্যবসায়ীকে মারধর * ধরাছোঁয়ার বাইরে মূল আসামিরা, মামলা তুলে নিতে হত্যার হুমকি * ভারতকে অনুরোধ করার দায়িত্ব কাউকে দেয়া হয়নি : ওবায়দুল কাদের * বঙ্গবন্ধু ভ্রাম্যমাণ রেলওয়ে জাদুঘর এখন ফরিদপুরে * কোটালীপাড়ায় একদিনে দু’জনের আত্মহত্যা * রাজবাড়ীতে মারামারি মামলায় সাংবাদিকসহ ২জন গ্রেফতার * নারায়ণগঞ্জে প্রাইভেটকারচাপায় পথচারীর মৃত্যু *

  • আজ শনিবার, ৫ ভাদ্র, ১৪২৯ ৷ ২০ আগস্ট, ২০২২ ৷

কারামুক্ত হতে আদালতেই বাদিনীকে বিয়ে করলেন ধর্ষণ মামলার আসামি


❏ বুধবার, এপ্রিল ২০, ২০২২ অপরাধ, আলোচিত বাংলাদেশ

সময়ের কন্ঠস্বর, ঢাকা: ধর্ষণ মামলায় জামিনে কারামুক্ত হতে আদালতে ভুক্তভোগী নারীকে বিয়ে করেছেন ধর্ষণে অভিযুক্ত যুবক ।

মঙ্গলবার ঢাকার দ্বিতীয় অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতে এ বিয়ে অনুষ্ঠানের জন্য আসামিকে কারাগার থেকে প্রোডাকশন ওয়ারেন্টের মাধ্যমে আদালতে হাজির করা হয়।

আদালতে বিয়ে অনুষ্ঠানের আগে বিচারক মোছা. বিলকিছ আক্তার আসামি হাসানুজ্জামানের জামিন মঞ্জুর করেন। এরপর এজলাসে বসেই বিয়ে পিঁড়িতে বসেন তারা। কয়েকজন আইনজীবী, সাংবাদিক, পুলিশ এসময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

বাদীপক্ষের আইনজীবী আজাদ রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ‘এ আসামি সিএমএম আদালতে জামিন আবেদন করেন। কিন্তু জামিন পাননি। পরে তিনি মহানগর দায়রা জজ আদালতে জামিন আবেদন করেন।

গত ১৭ এপ্রিল আদালত বিয়ের শর্তে আসামি জামিন পেতে পারেন জানিয়ে মামলাটি ঢাকার চতুর্থ অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতে শুনানির জন্য পাঠান।

মঙ্গলবার শুনানিকালে আসামিকে হাজির করা হয়। বাদী ভুক্তভোগী ওই তরুণীও হাজির ছিলেন। আসামি আদালতে বিয়ে করতে রাজি আছেন বলে জানান। এরপর আদালত ভুক্তভোগীকে বিয়ে করার শর্তে আসামিকে জামিন দেন। এরপর ১২ লাখ টাকা দেনমোহরে তাদের বিবাহের কাজ সম্পন্ন হয়।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, হাসানুজ্জামান বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের প্রজেক্টে ইঞ্জিনিয়ার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। ২০২০ সালে ফেসবুকের মাধ্যমে পরিচয় হয় এক তরুণীর সঙ্গে। এরপর তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এরপর থেকে আসামি ওই তরুণীকে বিয়ের প্রলোভনে আসামি ২০২১ সালের ১৬ জানুয়ারি বিকাল থেকে ২১ ফেব্রুয়ারি ঢাকার আদাবরের একটি বাসায় শারীরিক সম্পর্ক স্থাপন করেন।

এরপর ওই তরুণী আসামিকে বিয়ের কথা বললে তিনি নানা টালবাহানা করতে থাকেন। আসামি বিভিন্ন সময় ওই তরুণীর কাছ থেকে সাত লাখ টাকাও নেয়। একপর্যায়ে বিয়ের চাপ দিলে গত ২১ ফেব্রুয়ারি আসামি ওই তরুণীকে জানিয়ে দেয়, তিনি বিয়ে করবেন না।

পরে ভুক্তভোগী গত ৬ মার্চ আদাবর থানায় মামলা করেন। এরপর পুলিশ আসামিকে গ্রেপ্তার করে। দেড় মাস ধরে কারাগারে ছিলেন আসামি। কারামুক্ত হতে বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন আসামি হাসানুজ্জামান।