🕓 সংবাদ শিরোনাম

গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় কেউ মারা যায়নি দেশে * মেয়েদের জমি লিখে দেওয়ার বিরোধে বাবার হাতে খুন হলেন ছেলে * মাইক্রোসফটের সঙ্গে ওয়ালটনের চুক্তি * গাজীপুরে বঙ্গবন্ধুর শাহাদাত বার্ষিকীতে স্কুল ড্রেস বিতরণ * গত ২৪ ঘন্টায় দেশে ১২৮ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী ভর্তি * ‘আড্ডা প্রিয়’ স্বামীকে দ্বিতীয় বিয়ে করতে বলে অভিমানী স্ত্রীর আত্মহত্যা! * অভিনব কায়দায় প্রেমের ফাঁদে মোটরসাইকেল ছিনতাই, গ্রেপ্তার হলো তরুনী * বরগুনায় ছাত্রলীগ কর্মীদের উপর পুলিশের লাঠিচার্জ: তদন্ত করবে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ * ফরিদপুরে জুট মিলের রোলারে পিষ্ট হয়ে শ্রমিকের মৃত্যু * ফরিদপুরে স্ত্রীর করা মামলায় পুলিশ কর্মকর্তার কারাদণ্ড *

  • আজ মঙ্গলবার, ১ ভাদ্র, ১৪২৯ ৷ ১৬ আগস্ট, ২০২২ ৷

ভাঙ্গুড়ায় আ.লীগ নেতার বিরুদ্ধে জমি দখলের অপচেষ্টার অভিযোগ

Pabna news
❏ বুধবার, জুন ২৯, ২০২২ রাজশাহী

আব্দুল লতিফ রঞ্জু, পাবনা প্রতিনিধি: পাবনার ভাঙ্গুড়ায় সরকারি খাস পুকুর দখল করে মার্কেট নির্মাণের অভিযোগ পাওয়া গেছে সরদার আবুল কালাম আজাদ নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। আজাদ ভাঙ্গুড়া উপজেলা আ.লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক।

উপজেলার পার-ভাঙ্গুড়া ইউনিয়নের পাথরঘাটা গ্রামে মঙ্গলবার (২৮ জুন) রাতে এই ঘটনা ঘটে। পরে ঐ সম্পত্তির বর্তমান দখলদার আফসার আলী থানায় খবর দিলে পুলিশ কাজ বন্ধ করে দেয়। পরদিন বুধবার আফসার আলী থানায় লিখিত অভিযোগ দেন।

লিখিত অভিযোগ ও খোঁজ নিয়ে জানা যায়, উপজেলার পার-ভাঙ্গুড়া ইউনিয়নের পাথরঘাটা গ্রামে সরকারী খাস সম্পত্তি রয়েছে ২৮ শতাংশ। সম্প্রতি ঐ খাস সম্পত্তি দখলে নিতে চেষ্টা শুরু করে উপজেলা আ.লীগের সাংগাঠনিক সম্পাদক সরদার আবুল কালাম আজাদ। ইতোমধ্যে তিনি তার লোকজন নিয়ে সেখানে থাকা বেশ কিছু ফলজ গাছ কেটে ফেলেছেন। কারণ হিসেবে তিনি বলেছেন স্থানীয় মসজিদ ও জয় বাংলা ক্লাবের উন্নয়নের জন্য সেখানে মার্কেট নির্মান করা হবে। দেড়যুগ আগে প্রতিষ্ঠিত এই ক্লাবের কোনো রেজিস্ট্রেশন নেই। গত ২৫ জুন আফসার আলী বাড়িতে না থাকার সুযোগে তিনি ঐ স্থানের সকল ফলজ ও বনজ গাছ কেটে পরিষ্কার করেন। এরপর মঙ্গলবার (২৮ জুন) গভীর রাতে লোকজন নিয়ে মার্কেট নির্মানের প্রাথমিক কাজ শুরু করে তিনি। বিষয়টি দেখতে পেয়ে ঐ সম্পত্তির বর্তমান ভোগদখলকারী সাবেক চেয়ারম্যান আফসার আলী বিষয়টি থানা পুলিশকে জানান। এরপর ভাঙ্গুড়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ফয়সাল বিন আহসান সেখানে উপস্থিত হয়ে কাজ বন্ধ করে দেন।

এ সময় তিনি বলেন, সরকারী খাস জমিতে স্থাপনা নির্মান করতে হলে উপজেলা পরিষদসহ যে সকল দপ্তরের অনুমতি প্রয়োজন হয় যে গুলো সংগ্রহ করে নির্মান করতে। এরপর যদি কেউ পুনরায় নির্মান চেষ্টা করে তাকে আইনের আওতায় নেয়া হবে।

অভিযোগের বিষয়ে আ.লীগ নেতা সরদার আবুল কালাম আজাদ গনমাধ্যকে বলেন, অনেকদিন আগে এখানে নামকা ওয়াস্তে একটা ক্লাব প্রতিষ্ঠিত করা হয়েছিলো। এখন গ্রামের মানুষ ও মসজিদ কমিটি মিলে এখানে মার্কেট করতে চাচ্ছে তাই জায়গা পরিষ্কার করা হয়েছে। তবে তিনি স্বীকার করেন এখানে মার্কেট নির্মানের কোনো অনুমতি নেয়া হয়নি। তবে জমি দখলের অপচেষ্টার অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন।

অভিযোগ প্রাপ্তির কথা স্বীকার করে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাহিদ হাসান খান বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পর ইউনিয়ন ভূমি সহকারি কর্মকর্তাকে ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়ছিল। সেখানে সবাইকে কোনো ধরনের স্থাপনা গড়তে নিষেধ করা হয়েছে। তারপরও কেউ যদি স্থাপনা করতে যান তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।