🕓 সংবাদ শিরোনাম

বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে দেশকে চল্লিশ বছর পিছিয়ে দিয়েছে: আমির হোসেন আমু * ফরিদপুরে ১৪ দিন ধরে বন্ধ ক্লিনিক, টিকাদান কর্মসূচী চলছে স্কুলের বারান্দায়! * ফার্নেস অয়েলের দাম বাড়ল ১৫% * এবার গাড়িচাপায় প্রাণ গেল তিন মাদরাসাছাত্রের * ভারতে দুই বছর সাজাভোগ শেষে দেশে ফিরল ৮ বাংলাদেশি নারী * পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী মা হতে চলেছে, দুলাভাই গ্রেপ্তার * ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মুখে লাশ নিয়ে বিক্ষোভ * গার্ডার দুর্ঘটনা : ক্রেনচালকসহ গ্রেপ্তার ৯ * ফরিদপুর জেলা কারাগারে নেই কোনো চিকিৎসক, স্বাস্থ্য ঝুঁকিতে বন্দীরা * পাথর খেকোদের দখলে ডাহুক নদী: নষ্ট হচ্ছে পরিবেশ, ধ্বংস হচ্ছে ফসলি জমি *

  • আজ বৃহস্পতিবার, ৩ ভাদ্র, ১৪২৯ ৷ ১৮ আগস্ট, ২০২২ ৷

২ ঘন্টা পরপর ২০ মিনিট বিদ্যুৎ


❏ মঙ্গলবার, জুলাই ৫, ২০২২ রংপুর

ফয়সাল শামীম, স্টাফ রিপোর্টার:: কুড়িগ্রামের পল্লী বিদ্যুৎ লাইনে স্বরণ কালের ভয়াবহ লোডশেডিং দেখা দিয়েছে। কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী উপজেলার ভিতরবন্দ ও বামনডাঙ্গা ইউনিয়নে ২ ঘন্টা পর পর কয়েকবার যায়া আসার মধ্য দিয়ে ২০ থেকে ৩০ মিনিট বিদ্যুৎ মিলছে। এতে করে চরম বিপাকে পড়েছে আসন্ন এসএসসি পরীক্ষার পরীক্ষার্থী, সাধারন মানুষসহসহ ব্যাবসায়ীগণ।

আর নাগেশ্বরী পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির বৈষম্যমুলক বিদ্যুৎ বিতরণের কারণে সবচেয়ে বেশি বঞ্চিত হচ্ছে ভিতরবন্দ লাইনের গ্রাহকরা। এর ফলে এসএসসি পরীক্ষার্থীরা বিদ্যুৎ না পাওয়ায় প্রচন্ড গরমে তাদের পরীক্ষার প্রস্তুতি সঠিকভাবে নিতে পারছে না বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সরেজমিন ভিতরবন্দ লাইনে সকাল ৯ টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পযন্ত অবস্থান করে দেখা যায়, সকাল ৯ টা থেকে শুরু করে ৬ টা ২ ঘন্টা পরপর ২০/৩০ মিনিট বিদ্যুৎ দিয়ে আবার বিদ্যুৎ চলে যাচ্ছে। এই ২০/৩০ মিনিটের মধ্যে আবার কয়েকবার যাওয়া আসা করে বিদ্যুৎ!

ভিতরবন্দ বাজারের ঔষধ ব্যাবসায়ী খোরশেদ আলম বলেন, বিদ্যুৎ এখন সোনার হরিণ। কখন আসে কখন যায় বলতে পারবো না। গরমে থাকা যাচ্ছে না।

একই এলাকার এরশাদ ও বাবু জানান, কখন বিদ্যুৎ আসে কখন যায় আমরা বলতে পারি না। তারা আরও বলেন, অল্প কিছুদিনের মধ্যে এসএসসি পরীক্ষা শুরু প্রচন্ড গরমে বিদ্যুৎ না থাকায় পরীক্ষার প্রস্তুতিতে মহা সমস্যা হচ্ছে।

স্মরণ কালের ভয়াবহ লোডশেডিংয়ের ব্যাপারে জানতে চাইলে নাগেশ্বরী পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির ডিজিএম বলেন, এটা জাতীয় সমস্যা। চাহিদার তুলনায় অনেক কম বিদ্যুৎ পাচ্ছি তাই এমনটা হচ্ছে । তবে তিনি বলেন, দিনে কম বিদ্যুৎ দিলেও রাতে আমরা বেশি দেয়ার চেষ্টা করছি। তিনি আশা প্রকাশ করে বলেন, দ্রুতই এ সমস্যার সমাধান হবে।

তবে কবে নাগাদ পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে এ পশ্নের উত্তর তিনি দিতে পারেননি।