আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে নতুন শিক্ষাক্রম হবে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ভিত্তিক: শিক্ষামন্ত্রী


❏ বুধবার, আগস্ট ৩, ২০২২ জাতীয়

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক:শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি জানিয়েছেন, মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ভিত্তিক হবে আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে চালু হতে যাওয়া নতুন শিক্ষাক্রম ।

মঙ্গলবার বিকেলে শাহবাগের জাতীয় জাদুঘরের কবি সুফিয়া কামাল হল মিলনায়তনে শহীদ জায়া শ্যামলী নাসরীন চৌধুরী লিখিত এবং মানসী কায়েস ও ফারাহ নাজ অনূদিত ‘DR. ALIM: A MARTYR OF 1971’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

দীপু মনি বলেন, ‘আমাদের নতুন শিক্ষাক্রমের মূল ভিত্তি মুক্তিযুদ্ধের চেতনা। তার ওপরে ভিত্তি করে যেন আমাদের শিক্ষার্থীরা বিজ্ঞানমনস্ক, প্রযুক্তিবান্ধবের পাশাপাশি মানবিক সৃজনশীল মানুষ হয়। বাংলাদেশ যে চেতনা নিয়ে তৈরি হয়েছিল সেই অসাম্প্রদায়িক গণতান্ত্রিক চেতনা যেন ধারণ করে শিক্ষার্থীরা বড় হতে পারে তার উপযোগী করেই নতুন শিক্ষাক্রম তৈরি করেছি।’

দীপু মনি আরও বলেন, ‘আমরা ৭২ এর সংবিধানের কাছাকাছি বর্তমানে যতটুকু যেতে পেরেছি তার থেকেও এখনো অনেক দূর যাওয়ার বাকি আছে। এখনো পাকিস্তানি মনমানসিকতার মানুষ আমাদের চারদিকে রয়েছে তাই সার্বিক শুদ্ধতার দিকে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করতে হবে আমাদের।’

অনুষ্ঠানের মূল বক্তা বাংলাদেশ মেডিকেল রিসার্চ কাউন্সিলের চেয়ারম্যান অধ্যাপক সাইদ মোদাচ্ছের আলী বলেন, ‘আমাদের পরিবারে আমরা ঠিকমতো মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে আলোচনা করি না। আমরা যদি মুক্তিযুদ্ধকে ধরে রাখতে চাই তাহলে ইংরেজিতে বই লিখে দেশে এবং বিদেশে প্রচার করতে হবে।’

যুদ্ধাপরাধের সঙ্গে জড়িতরা যেসব সংগঠনের সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিল সেসব সংগঠনকে নিষিদ্ধ করার আহ্বান জানান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ।

শ্যামলী নাসরীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা শাহরিয়ার কবির, সম্প্রীতি বাংলাদেশের আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা পীযূষ বন্দ্যোপাধ্যায় এবং একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা কাজী মুকুল প্রমুখ।