এইমাত্র
  • চলতি আইপিএলে দ্রুততম শতক হাঁকালেন হেড
  • ‘রাজকুমার’র সফলতায় ভক্তদের শুভেচ্ছা শাকিবের
  • রাত ১টার মধ্যে যে সব এলাকায় ৬০ কিলোমিটার বেগে ঝড়
  • এইচএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ শুরু আগামীকাল
  • ওমরাহ ভিসার মেয়াদে যে পরিবর্তন আনল সৌদি আরব
  • ইরান-ইসরায়েল মধ্যকার উত্তেজনায় সৌদির অবস্থান কী?
  • নরসিংদীতে প্রকাশ্যে ইউপি সদস্যকে গুলি ও জবাই করে হত্যা
  • বড় মেয়েকে নিয়ে গোপনে বাংলাদেশ ছাড়লেন সেই জাপানি মা
  • দ্বাদশ জাতীয় সংসদের দ্বিতীয় অধিবেশন বসছে ২ মে
  • ইরানের হামলার পর যে চার মুসলিম দেশকে যুক্তরাষ্ট্রের বার্তা
  • আজ সোমবার, ২ বৈশাখ, ১৪৩১ | ১৫ এপ্রিল, ২০২৪
    রাজনীতি

    বুয়েটে জঙ্গি রাজনীতির প্রমাণ পেলে ব্যবস্থা: ওবায়দুল কাদের

    সময়ের কণ্ঠস্বর রিপোর্ট প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০২৪, ০১:৩৯ পিএম
    সময়ের কণ্ঠস্বর রিপোর্ট প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০২৪, ০১:৩৯ পিএম

    বুয়েটে জঙ্গি রাজনীতির প্রমাণ পেলে ব্যবস্থা: ওবায়দুল কাদের

    সময়ের কণ্ঠস্বর রিপোর্ট প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০২৪, ০১:৩৯ পিএম

    আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের জানিয়েছেন, ছাত্র রাজনীতি বন্ধ করার নামে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়কে (বুয়েট) জঙ্গি রাজনীতির কারখানায় পরিণত করার প্রমাণ পেলে সরকার অ্যাকশনে যাবে।

    রোববার (৩১ মার্চ) রাজধানীর তেজগাঁওয়ে আওয়ামী লীগের ঢাকা জেলা কার্যালয়ে চট্টগ্রাম বিভাগীয় মতবিনিময় সভায় এ কথা বলেন তিনি।

    বুয়েটে শিক্ষার্থীদের চলমান আন্দোলনের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বুয়েটে আবরার হত্যায় কাউকে ছাড় দেওয়া হয়নি। বিশ্বজিৎ হত্যাকাণ্ডে নেতাকর্মীদের দণ্ড হয়েছে, কাউকে ছাড় দেয়া হয়নি। বুয়েটের ঘটনাও তদন্ত চলছে।’

    ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমাদের নেত্রী শেখ হাসিনা অপকর্ম-অন্যায়ের বিরুদ্ধে, দুর্নীতির বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি অবলম্বন করেন এবং সেই নীতিতেই আমরা এগিয়ে চলছি।’

    তিনি বলেন, ‘এখানে সেদিন যা ঘটেছে, কেউ তো ওখানে রাজনৈতিক কোনো কর্মসূচি পালন করতে যায়নি! সেখানে তো কোনো রাজনৈতিক কর্মসূচি ছিল না। আজকে আমি রাজনীতি করি, সে জন্য বুয়েটে আমি যেতে পারব না? এটা কোন ধরনের আইন? এটা কোন ধরনের নিয়ম?’

    গত চার বছর ধরে বুয়েটে নিষিদ্ধ ছাত্র রাজনীতি, বন্ধ রাজনৈতিক ছাত্র সংগঠনও। এরই মধ্যে ২৮ মার্চ মধ্য রাত থেকে হঠাৎ উত্তপ্ত হয়ে ওঠে বুয়েট। ক্যাম্পাসে রাজনীতির বীজ বপনের চেষ্টা হচ্ছে এমন অভিযোগে শুক্রবার আন্দোলনে নামেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা। ছয় দফা দাবিতে শহীদ মিনারের পাদদেশে অবস্থান করেন তারা।

    দ্বিতীয় দিন শনিবার ১১টায় আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে আল্টিমেটাম দেয়া হয়। নিয়ম ভাঙার দায়ে ২১ ব্যাচের পুরকৌশল বিভাগের শিক্ষার্থী ইমতিয়াজ রাব্বিকে স্থায়ী বহিষ্কার সময় বেধে দেয়া হয় দুপুর ২টা পর্যন্ত।

    এরপর শিক্ষার্থীরা অবস্থান নেন বুয়েটের প্রশাসনিক ভবনের সামনে। বেলা সাড়ে বারোটার দিকে তীব্র গরমে অসুস্থ বোধ করতে থাকেন তারা। অবশেষে দ্বিতীয় দিনের আন্দোলনের সমাপ্তি টানা হয়। তবে রোববার সকাল থেকে আরও কঠিন আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেন।

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…