এইমাত্র
  • ‘রাজকুমার’র সফলতায় ভক্তদের শুভেচ্ছা শাকিবের
  • রাত ১টার মধ্যে যে সব এলাকায় ৬০ কিলোমিটার বেগে ঝড়
  • এইচএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণ শুরু আগামীকাল
  • ওমরাহ ভিসার মেয়াদে যে পরিবর্তন আনল সৌদি আরব
  • ইরান-ইসরায়েল মধ্যকার উত্তেজনায় সৌদির অবস্থান কী?
  • নরসিংদীতে প্রকাশ্যে ইউপি সদস্যকে গুলি ও জবাই করে হত্যা
  • বড় মেয়েকে নিয়ে গোপনে বাংলাদেশ ছাড়লেন সেই জাপানি মা
  • দ্বাদশ জাতীয় সংসদের দ্বিতীয় অধিবেশন বসছে ২ মে
  • ইরানের হামলার পর যে চার মুসলিম দেশকে যুক্তরাষ্ট্রের বার্তা
  • পহেলা বৈশাখকে অস্বীকারকারীরা দেশের ইতিহাসকেই অস্বীকার করে: কাদের
  • আজ সোমবার, ২ বৈশাখ, ১৪৩১ | ১৫ এপ্রিল, ২০২৪
    আন্তর্জাতিক

    যুদ্ধের মধ্যে জেলেনস্কির আয় বাড়ল তিন গুণ

    আন্তর্জাতিক ডেস্ক প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০২৪, ০৩:২৯ পিএম
    আন্তর্জাতিক ডেস্ক প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০২৪, ০৩:২৯ পিএম

    যুদ্ধের মধ্যে জেলেনস্কির আয় বাড়ল তিন গুণ

    আন্তর্জাতিক ডেস্ক প্রকাশ: ৩১ মার্চ ২০২৪, ০৩:২৯ পিএম

    রাশিয়ার সঙ্গে চলমান যুদ্ধের মধ্যে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির বার্ষিক আয় তিন গুণের বেশি বেড়েছে। গত শুক্রবার জেলেনস্কির ২০২২ সালের আয়ের ঘোষণা থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

    জানানো হয়েছে, ২০২২ সালে জেলেনস্কির বার্ষিক আয় বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ কোটি ২৪ লাখ ২০ হাজার ইউক্রেনীয় রিভনিয়া বা ৩ লাখ ৬ হাজার ডলারে। এর আগের বছর তাঁর মোট আয় ছিল ৩৭ লাখ রিভনিয়া। সেই হিসাবে এক বছরে জেলেনস্কির আয় বেড়েছে তিন গুণের বেশি।

    ২০২২ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সর্বাত্মক হামলা শুরু করে রুশ সেনাবাহিনী। তখন থেকে দেশটিতে যুদ্ধ চলছে। যুদ্ধের সময়ে (২০২২ সালে) প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি বেশ কিছু সরকারি বন্ড বিক্রি করে এবং নিজস্ব সম্পত্তির বাড়তি ভাড়া আদায় করে অতিরিক্ত আয় করেছেন।

    ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের দাপ্তরিক ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, জেলেনস্কি ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের আয়ের বেশির ভাগ এসেছে সরকারি বেতন, ব্যাংক থেকে পাওয়া সুদ এবং নিজস্ব সম্পত্তির ভাড়া থেকে।

    ওয়েবসাইটে আরও বলা হয়েছে, প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা ২০২২ সালে সরকারি বন্ড বিক্রি করে ৭৪ লাখ ৫০ হাজার ইউক্রেনীয় রিভনিয়া আয় করেছেন। তবে এ সময় প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কির স্থাবর সম্পত্তি কিংবা যানবাহন উল্লেখযোগ্য পরিমাণে বাড়েনি।

    জেলেনস্কি সরকারি কর্মকর্তাদের সম্পদের হিসাব প্রকাশের আহ্বান জানিয়েছেন। এ আহ্বান তিনি জানিয়েছেন, স্বচ্ছতা বাড়ানো ও দুর্নীতির লাগাম টানার উদ্যোগের অংশ হিসেবে। ইউরোপীয় ইউনিয়নে (ইইউ) ইউক্রেনের অন্তর্ভুক্তির কড়া শর্ত পূরণের চেষ্টায় এই উদ্যোগ নিয়েছেন জেলেনস্কি।

    যুদ্ধকালে পশ্চিমা মিত্ররা জেলেনস্কি প্রশাসনকে অর্থ ও সামরিক সহায়তা দিয়ে আসছে। সেই সঙ্গে আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) মতো আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোও দুর্নীতির লাগাম টানার উদ্যোগের বিষয়ে নিশ্চয়তা দিতে জেলেনস্কি সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

    এমএইচ

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…