এইমাত্র
  • ‘রাফসান দ্য ছোট ভাই’-এর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা
  • হঠাৎ বৃষ্টিতে ভোগান্তি চরমে, ভাড়া নেওয়া হচ্ছে দিগুণ
  • খাগড়াছড়িতে কৃষি গবেষণা কেন্দ্র থেকে শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার
  • রংপুরে মেট্রোপলিটন পুলিশ ও র‍্যাবের সাব কন্ট্রোল রুম উদ্বোধন
  • বাংলাসহ ৫০ ভাষায় অনুবাদ হবে হজের খুতবা
  • ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে নেই যানজট, নির্বিঘ্নে আসছে কোরবানির পশু
  • কুয়াকাটা ৬৫ দিনের অবরোধে জেলেদের মধ্যে সচেতনতা মূলক ক্যাম্পেইন
  • ১৫২ কোটি টাকার মামলা: কমিশনার ওয়াহিদাকে বিদেশ যাত্রায় নিষেধাজ্ঞা
  • শনিবার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ নাকি খোলা, সিদ্ধান্ত ঈদের পর
  • আওয়ামী লীগ নেতা মিন্টু ৮ দিনের রিমান্ডে
  • আজ বৃহস্পতিবার, ৩০ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ | ১৩ জুন, ২০২৪
    দেশজুড়ে

    বকশীগঞ্জে ছেলের বিরুদ্ধে মায়ের সংবাদ সম্মেলন

    আবদুল লতিফ লায়ন, জামালপুর প্রতিনিধি প্রকাশ: ১০ জুন ২০২৪, ০৯:১২ এএম
    আবদুল লতিফ লায়ন, জামালপুর প্রতিনিধি প্রকাশ: ১০ জুন ২০২৪, ০৯:১২ এএম

    বকশীগঞ্জে ছেলের বিরুদ্ধে মায়ের সংবাদ সম্মেলন

    আবদুল লতিফ লায়ন, জামালপুর প্রতিনিধি প্রকাশ: ১০ জুন ২০২৪, ০৯:১২ এএম

    জামালপুরের বকশীগঞ্জে মাকে ঘর থেকে বের করে দেওয়ার ঘটনায় শিক্ষক ছেলের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছে বৃদ্ধ মা ও ছোট ভাই।

    রবিবার (০৯ জুন) দুপুর ১২টায় বকশীগঞ্জ সদর ইউনিয়নের সূর্যনগর নঈম মিয়ার বাজার এলাকায় ওই সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

    উপজেলার বগারচর ইউনিয়নের সারমারা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাফিজুর রহমানের বিরুদ্ধে ওই সংবাদ সম্মেলন করেন তারা।

    সংবাদ সম্মেলনে বৃদ্ধ মাছেমা খাতুন বলেন, আমার বড় ছেলে শিক্ষক হাফিজুর রহমান সূর্যনগর বাজার এলাকায় আমার ছোট ভাই আবুল হাসেমের কাছে ৮ লাখ টাকায় ৩৩ শতাংশ জমি বিক্রি করেন। ওই জমিতে ২০১৭ সালে আমি ও ছোট ছেলে আবুল হাসেম তার পরিবার নিয়ে বসত ঘর নির্মাণ করে বসবাস শুরু করি।

    কিন্তু ৭ বছর পার হলেও শিক্ষক হাফিজুর রহমান তার ছোট ভাইকে বিক্রি করা জমিটি কবলা না দিয়ে টালবাহানা করতে থাকেন। এনিয়ে আমি ও আবুল হাসেম জমির কবলা চাইতে গেলে শিক্ষক হাফিজুর রহমান তাকে বসত ভিটা থেকে উচ্ছেদ করতে আবুল হাসেমের বিরুদ্ধে ৭ মিথ্যা মামলা দায়ের করেন।

    এ বিষয়ে আবুল হাসেমের পক্ষে কথা বলায় কয়েদিন আগে আমাকে থাকার ঘর থেকে বের করে দিয়ে তালা ঝুলিয়ে দেন। তাই বিক্রি করা জমি ফিরে পেতে ও মিথ্যা মামলা থেকে রেহাই পেতে স্থানীয় প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন বৃদ্ধ মাছেমা খাতুন ও তার ছোট ছেলে আবুল হাসেম।

    সংবাদ সম্মেলনে মাছেমা খাতুন ছাড়াও তার পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

    এআই

    সম্পর্কিত:

    সম্পর্কিত তথ্য খুঁজে পাওয়া যায়নি

    সর্বশেষ প্রকাশিত

    Loading…